অ্যান্ড্রোয়েড (এপিকে) ও আইওএস (১.০.০) -এ ফ্রি ডাউনলোড করুন প্যারিম্যাচ অ্যাপ

একই গন্ডীর মধ্যে নিজেকে বেঁধে না রেখে আজই আপনার মোবাইল ফোনে ডাউনলোড করুন প্যারিম্যাচ অ্যাপ। আমরা অ্যান্ড্রোয়েড এবং আইওএস স্মার্টফোনের জন্য কার্যকর মোবাইল ক্লায়েন্ট তৈরি করেছি এবং তার মধ্যে আমাদের বেসিক ওয়েব ভার্সনের সব বৈশিষ্ট্যই তুলে ধরতে সক্ষম হয়েছি। অর্থাৎ, এখনি আমাদের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট থেকে প্যারিম্যাচ এপিকে ফাইলটি ডাউনলোড করে নিন এবং নিজের বেটিং যাত্রা শুরু করুন।

প্যারিম্যাচ এপিকে ডাউনলোড

ডাউনলোড করুন.

প্যারিম্যাচ অ্যাপ সম্পর্কে কিছু প্রাথমিক তথ্য

আপনার স্মার্টফোন থেকে প্যারিম্যাচে বেটিং শুরু করতে চাইলে আপনাকে আমাদের মোবাইল অ্যাপটি ডাউনলোড করতে হবে। ক্লায়েন্টটির দুইটি ভার্সন তৈরি করা হয়েছে, একাধারে অ্যান্ড্রোয়েড ও আইওএস মোবাইল ডিভাইস ব্যবহারকারীদের জন্য। এই ভার্সনগুলি ব্যবহার করে আপনি ক্রিকেট, কাবাডি, এবং অন্যান্য অনেক খেলাধুলায় বেট করতে পারেন, বোনাস পেতে পারেন, ক্যাশ রেজিস্টারটি ব্যবহার করতে পারেন, এবং পারেন আমাদের অসাধারণ কাস্টমার সাপোর্ট টিমের সাথে যোগাযোগ স্থাপন করতে। এবং, এর অতি আধুনিক এবং ইউজার-বান্ধব ইন্টারফেইসটির কারণে আপনি এটি শুধুমাত্র এক হাতের মাধ্যমেই ব্যবহার করতে পারবেন।

অ্যাপ্লিকেশনটির বর্তমান ভার্সন১.০.০
এপিকে’র সাইজ৩.৪৪ এমবি
ইন্সটলেশনের পরের সাইজ২১.১৬ এমবি
ডাউনলোডের খরচফ্রি
যেসব অপারেটিং সিস্টেমে সাপোর্ট করেঅ্যান্ড্রোয়েড, আইওএস
সরাসরি সম্প্রচারের অনুমতিনিবন্ধনের পর
স্পোর্টস বেটিং-এর অনুমতিনিবন্ধনের পর

নিবন্ধন এবং প্রথমবারের মত টাকা জমাদানের পর সকল নতুন খেলোয়াড়ই 15,০০০ টাকা পর্যন্ত তার জমাকৃত টাকার ১5০% সমমুল্যের একটি বিশেষ বোনাস পেতে পারেন। সাইন-আপ করুন, ক্লায়েন্টটি ডাউনলোড করুন, এবং যেকোন সময় যেকোন স্থান থেকে অ্যাপটি ব্যবহার করুন।

স্ক্রিনশট

অ্যান্ড্রোয়েডের জন্য প্যারিম্যাচ অ্যাপ (.এপিকে)

প্রধান (ডেস্কটপ) ক্লায়েন্ট ভার্সনে সাপোর্টকৃত সকল ইভেন্টই প্যারিম্যাচে অ্যাপেও পাওয়া যায়। প্রতিদিন আপনি শত শত বা হাজার হাজার ফলাফলের উপর প্রেডিকশন করতে পারবেন এবং সেখান থেকে জিতে নিতে পারবেন প্রচুর অর্থ। এখনি খেলা শুরু করতে চাইলে যা আপনার করতে হবে তা হচ্ছে শুধুমাত্র প্যারিম্যাচ অ্যাপটি ডাউনলোড করা।

৪টি সহজ ধাপে অ্যান্ড্রোয়েডে প্যারিম্যাচ অ্যাপটি ডাউনলোড করার পদ্ধতি

আপনি প্যারিম্যাচের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট থেকে আপনার স্মার্টফোনে অ্যাপটি ডাউনলোড করতে পারবেন। অ্যাপ্লিকেশনটি হয়তো আপনি গুগল প্লে-স্টোরে নাও পেতে পারেন। সেক্ষেত্রে, এই পেইজটি ব্যবহার করে অ্যাপটি ডাউনলোড করে নিতে পারেন। তেমনটি করতে হলে, নির্দেশনাগুলি অনুসরণ করুনঃ

অনলাইন নিবন্ধন

প্যারিম্যাচ অ্যাপটি ডাউনলোড করার আগে, আমাদের ওয়েবসাইটে আপনাকে নিবন্ধন করতে হবে। আমাদের লিঙ্কটি অনুসরণ করুন এবং ভেতরের ফর্মটি পূরন করুন।

আপনার ফোন নম্বর এবং পাসওয়ার্ড দিয়ে ক্ষেত্রগুলি পূরণ করুন. তারপর ফিরতি অ্যাপ্লিকেশন ডাউনলোড করতে এগিয়ে যান.

প্রবেশাধিকার উন্মুক্ত করুন

আপনার স্মার্টফোনটির সিকিউরিটি সেটিংস-এ যেয়ে “Allow the installation of applications from unknown sources” অপশনটি বেছে নিন।

অন্যথায় আপনি এবং ডাউনলোড ফিরতি অ্যাপ্লিকেশন ইনস্টল করতে পারবেন না.

প্যারিম্যাচ .এপিকে ডাউনলোড করুন

বুকমেকারটির ওয়েবসাইট-টি আপনার মোবাইলের ব্রাউজারে খুলুন, এবং “ডাউনলোড” বাটনে ক্লিক করুন।

আপনি ফিরতি অ্যাপ ডাউনলোড পৃষ্ঠা থেকে আপনাকে পুনঃনির্দেশিত করা হবে.

প্যারিম্যাচ অ্যাপটি ইন্সটল করুন

ডাউনলোডকৃত ফাইলটি ওপেন করুন এবং ইন্সটল অপশনটিতে ক্লিক করুন।

ওপেন ফিরতি অ্যাপ্লিকেশন, আপনার অ্যাকাউন্টে লগ ইন করুন অথবা একটি নতুন এক তৈরি এবং পণ শুরু.

অ্যান্ড্রোয়েডের জন্য প্যারিম্যাচ বাংলাদেশ অ্যাপটির রিভিউ

আমাদের ভিডিও রিভিউটিতে দেখুন প্যারিম্যাচ বাংলাদেশ অ্যাপটির বৃত্তান্তঃ

Video review of the Parimatch app for Android.

সিস্টেম রিকোয়্যারমেন্টস

মোবাইল ক্লায়েন্টটিকে সুষ্ঠূভাবে চালানোর জন্য আপনার স্মার্টফোনটিকে এইসসব শর্তাবলি পূরণ করতে হবেঃ

অপারেটিং সিস্টেমঅ্যান্ড্রোয়েড ৫.০
র‍্যাম১ জিবি
প্রসেসর১.২ গিগাহার্টজ
মেমোরি স্পেস১০০ এমবি

যেসব অ্যান্ড্রোয়েড ডিভাইসে সাপোর্ট করে

কয়েক ডজন স্মার্টফোন মডেলে প্যারিম্যাচ অ্যান্ড্রোয়েড অ্যাপটি সম্পূর্ণ সাফল্যের সাথে পরীক্ষিত হয়েছে। এর মধ্যে রয়েছেঃ

  • হুয়াই পি-৮ লাইট;
  • লেনোভো সিসলে এস-৯০;
  • মেইজু এমএক্স-৫;
  • হুয়াই নেক্সাস ৬-পি;
  • আসুস জেনফোন ২;
  • স্যামসুং গ্যালাক্সি এস-৬;
  • শাওমি রেডমি নোট ৩ প্রো;
  • হুয়াই পি-৩০;
  • হুয়াই মেইট ২০;
  • অপ্পো রেনো;
  • রেডমি নোট ৭;
  • রেডমি নোট ৮;
  • রেডমি নোট ৯;
  • রিয়ালমি ৭-আই, ইত্যাদি।

ফিরতি মোবাইল অ্যাপ্লিকেশন সবচেয়ে আধুনিক অ্যান্ড্রয়েড ডিভাইসের উপর পাওয়া যায়.

এই সকল ব্র্যান্ডের ফোনে ক্লায়েন্টটি কোন প্রকার স্থিরতাজনিত বা অন্যান্য ত্রুটির সম্মুখীন হয়ে থাকেনা। আপনার কাছে যদি একই বা তার চেয়ে শ্রেয় স্পেসিফিকেশনের কোন মডেল থেকে থাকে, তাহলেও কোন সমস্যা নেই।

আইওওএস-এর জন্য প্যারিম্যাচ অ্যাপ ডাউনলোড

আপনি যদি একজন আইফোন বা আইপ্যাড ব্যবহারকারী হোন,তাহলেও আপনি প্যারিম্যাচের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটের মাধ্যমে প্যারিম্যাচ বাংলাদেশের এপিকে ফাইলটি ডাউনলোড করে নিতে পারেন। নির্দেশনাগূলিও অনেকটা একই রকমঃ

  1. ১। এই লিঙ্কটি অনুসরণ করুন। নিবন্ধনের ধাপটি পার করুন;
  2. ২। ফাইলটি ডাউনলোড করুন। মোবাইল ব্রাউজার দিয়ে ওয়েবসাইটটির ডাউনলোড সেকশনে গিয়ে “ডাউনলোড” বাটনে ক্লিক করুন।
  3. ৩। ক্লায়েন্টটি ডাউনলোড করুন। ডাউনলোডকৃত ফাইলটি ওপেন করুন এবং যাকোন নিয়মিত অ্যাপের মত করেই ইন্সটল করুন।

Video review of the Parimatch app for iPhone and iPad.

প্যারিম্যাচ আইওএস-এর জন্য সিস্টেম রিকোয়্যারমেন্টস

আইওএস-এর ক্ষেত্রেও সিস্টেম রিকোয়্যারমেন্টগুলো একই। আপনার স্মার্টফোন থেকে ক্লায়েন্টটির নিয়মিত কার্যসম্পাদনের জন্য এসকল বৈশিষ্ট্য থাকা প্রয়োজনঃ

অপারেটিং সিস্টেমআইওএস ৮
র‍্যাম১ জিবি
প্রসেসর১.২ গিগাহার্টজ
মেমোরি স্পেস১০০ এমবি

যেসব আইওএস ডিভাইসে সাপোর্ট করে

অ্যাপেল স্মার্টফোন ও ট্যাবলেটগুলোর প্রচুর মডেলেই প্যারিম্যাচ বাংলাদেশ অ্যাপটি পরীক্ষিত হয়েছে। এর মধ্যে রয়েছেঃ

  • আইফোন ৪এস;
  • আইফোন ৫;
  • আইফোন ৫এস;
  • আইফোন ৬;
  • আইফোন ৬এস;
  • আইফোন ৭;
  • আইফোন ৭ প্লাস;
  • আইপ্যাড ২;
  • আইপ্যাড ৩;
  • আইপ্যাড ৪;
  • আইপ্যাড মিনি;
  • আইপ্যাড মিনি ২;
  • আইপ্যাড প্রো।

আপনি ফিরতি ইনস্টল করতে পারেন মোবাইল অ্যাপ্লিকেশন আপনার আইফোন 4 এস মডেল অধীনে নয় শুধুমাত্র যদি.

এর চেয়েও নতুন ডিভাইসগুলোতেও প্যারিম্যাচ আইওএস অ্যাপটি স্থিতীশীলতা এবং গতিময়তার সাথেই চলবে।

প্যারিম্যাচ অ্যাপে কিভাবে বোনাস পাওয়া যায়?

প্যারিম্যাচ বাংলাদেশ অ্যাপের সকল নতুন গ্রাহককেই তাদের প্রথম অর্থ জমাদানে একটি আকর্ষণীয় ওয়েলকাম বোনাস দেওয়া হয়ে থাকে। প্ল্যাটফর্মটি 15,০০০ টাকা পর্যন্ত সেই সর্বপ্রথম জমাকৃত অর্থকে দ্বিগুন করে দেয়।

এটি এভাবে কাজ করেঃ

  • আপনাকে প্যারিম্যাচের ওয়েবসাইট বা অ্যাপে নিবন্ধন করতে হবে।
  • ক্যাশিয়ারের মাধ্যমে আপনাকে 15,০০০ টাকা পর্যন্ত যেকোন পরিমাণ অর্থ জমা দিতে হবে।
  • আপনার বোনাস অ্যাকাউন্টে আপনার জমাকৃত অর্থের +15০% অ্যামাউন্ট জমা হবে।
  • ওয়েজারিং এর শর্তগুলো পূরণ করুন।
  • এভেইলেবল যেকোন ব্যাংক কার্ড বা ই-ওয়ালেটে টাকা ট্রান্সফার করুন।

বোনাসটি জিতে নিতে আপনাকে ১ সপ্তাহের মধ্যে বোনাস অ্যামাউন্টের ৫ গুণ অর্থ উপার্জন করতে হবে ওয়েবসাইটটিতে। প্রত্যেক ইভেন্ট এর জন্য ১.৫ অডস ধার্য হবে।

প্যারিম্যাচ মোবাইল অ্যাপটিতে আজই খেলা শুরু করুন, নতুন খেলোয়েড়দের জন্য দেওয়া বোনাসটি সক্রিয় করুন, এবং শুরুতেই আমাদের অসাধারণ সুবিধাগুলি ভোগ করুন।

ক্যাসিনো

যেসকল খেলোয়াড়রা স্পোর্টস বেটিং থেকে বিরতি নিতে ইচ্ছুক তারা যেকোন সময় প্যারিম্যাচের অনলাইন ক্যাসিনোটি ভিজিট করতে পারেন। এই সেকশনটি প্যারিম্যাচের মোবাইল অ্যাপেও পাওয়া যায়। এখানে আপনার জন্য যা যা অপেক্ষা করছে তা হলঃ

  • বিভিন্ন প্রোভাইডার-এর পক্ষ থেকে কয়েক শত স্লটস।
  • টেবিল গেমসঃ রুল্যে, ব্ল্যাকজ্যাক, বেক্যার‍্যাট, পোকার ইত্যাদি।
  • লাইভ ডিলারের সাথে খেলাধুলা। একই টেবিল গেমস, কিন্তু সত্যিকারের উপস্থাপকের সাথে।

কুরাসাও লাইসেন্স-এর সুবাদে প্যারিম্যাচ অনলাইন ক্যাসিনোতে নানারকম স্লট মেশিন চালু রয়েছে। এগুলো অফার করে নেটএন্ট (NetEnt), ইগদ্রাসিল (Yggdrasil), প্লেটেক (PlayTech), মাইক্রোগেমিং (MicroGaming), রেড টাইগার (Red Tiger) -দের মত নামীদামী কোম্পানীগুলো। এদের সকলেই খুবই আস্থাবান এবং সৎ কোম্পানী। এবং, আপনি যদি আমাদের র‍্যান্ডম নম্বর জেনারেটরটিকে ভরসা করতে না পারেন, তাহলে অন্যান্য খেলোয়াড়দের বিপক্ষে কোন একটি লাইভ গেইমে অংশ নিন।

আপনার সেল ফোনে অনলাইন ক্যাসিনো ফিরতি অ্যাপ্লিকেশন.

প্যারিম্যাচ অ্যাপ্লিকেশনে টাকা জমাদান এবং উত্তোলনের পদ্ধতিসমূহ

আপনার স্মার্টফোনে প্যারম্যাচ নিবন্ধন ও মোবাইল ক্লায়েন্টটি ডাউনলোড-এর কাজ শেষ হলে, আপনি অর্থ জমাদা্নে বা ডিপোজিট করতে সমর্থ হবেন। বুকমেকারটির অফিসের পেমেন্ট সংক্রান্ত সকল কার্যক্রম ক্যাশিয়ারের ডেস্কের মাধ্যমেই হয়ে থাকে। বাংলাদেশের খেলোয়াড়দের জন্য এখানে যথাযথ শর্তাবলিও প্রযোজ্য। আপনি এখানে অর্থ জমা করতে বা ডিপোজিট করতে এবং অর্থ উত্তোলন করার ক্ষেত্রে দেশটির সবচেয়ে নামীদামী পেমেন্ট ব্যবস্থাগুলি ব্যবহার করতে পারবেন।

পেমেন্ট ব্যবস্থাসর্বনিম্ন ডিপোজিটউত্তোলনের সময়কাল
বিকাশ১০০ টাকা১ ঘন্টা
নগদ১০০ টাকা১ ঘন্টা
রকেট১০০ টাকা১ ঘন্টা
নেটেলার১০০ টাকা১ ঘন্টা
স্ক্রিল১০০ টাকা১ থেকে ৭ বাণিজ্যিক দিন পর্যন্ত
মাস্টারকার্ড১০০ টাকা১ থেকে ৭ বাণিজ্যিক দিন পর্যন্ত
ভিসা১০০ টাকা

যখন আপনি টাকা জমা দিবেন বা ডিপোজিট করবেন, তখন একদম সাথে সাথেই কাজটি সম্পন্ন হয়ে যাবে। অন্যদিকে, টাকা উত্তোলনের সময় আপনার বাছাইকৃত টাকার পরিমাণ এবং পেমেন্ট ব্যবস্থার উপর নির্ভর করে বিভিন্ন পরিমাণে সময় লাগতে পারে। প্যারিম্যাচ এসব লেনদেনে কোনপ্রকার কমিশন গ্রহণ করেনা।

প্যারিম্যাচ অ্যাপে স্পোর্টস বেটিং

আমরা নিয়মিত সক্রিয়ভাবে কাজ করে যাচ্ছি আমাদের বেটিং লাইনটিকে উন্নত করার জন্য, এবং ব্যবহারকারীদের সকল প্রকার খেলাধুলায় বেটিং করার সুযোগ করে দেওয়ার জন্য। এর মধ্যে বাংলাদেশের অনেক রকম বিখ্যাত খেলাধুলাও অন্তর্ভুক্ত। অ্যাপটিতে লগ-ইন করার পরে আপনি নিম্নোক্ত যেকোন খেলার যেকোন এভেইলেবল ম্যাচে বেটিং করতে পারবেনঃ

Choose you favorite sport and place bets through Parimatch app.

এছাড়াও আপনি সুযোগ পাবেন “সাইবারস্পোর্টস” বা ই-স্পোর্টস বিভাগের সকল খেলায় বেটিং করার। আপনি যদি কম্পিউটার বা মোবাইল গেমসের চরম ভক্ত হয়ে থাকেন, তাহলে আপনি লিগ অফ লেজেন্ডস, ডোটা ২, স্টারক্রাফট ২, কল অফ ডিউটিঃ গ্লোবাল অফেন্সিভ (সিএসঃ জিও), ফিফা, ইত্যাদি বিখ্যাত গেইমে আপনার পচন্দের দলগুলোর উপর বেটিং করে অনেক টাকা কামিয়ে নিতে পারবেন।

বেট-এর প্রকারভেদ

প্যারিম্যাচের অফিসিয়াল অ্যাপটির মাধ্যমে আপনি নিম্নোক্ত বিভিন্ন প্রকারের বেট-এ অংশ নিতে পারবেনঃ

একক
একদম সাধারণ প্রকারের বেট, যেখানে আপনি শুধুমাত্র একটি ফলাফলের উপর বেটিং করতে পারবেন। যদি লেগে যায়, তবে জিতে যাবেন, নতুবা, আপনার দূর্ভাগ্য।
এক্সপ্রেস
এই ধরণের বেট-এর মাধ্যমে আপনি একই সাথে কয়েকটি ফলাফল বা আউটকামের উপর বেট করতে পারবেন। আপনার বেট অনুসারে অডসও কয়েকগুন হবে, যার ফলে আপনার সম্ভাব্য উইনিং-এর পরিমাণও বেড়ে যাবে। কিন্তু টাকাটি পাওয়ার জন্য আপনাকে আপনার করা সকল প্রেডিকশনের উপরেই টাকা লাগাতে হবে। যদি আপনার করা বেটগুলোর মধ্যে আপনি একটিতেও হেরে যান, তবে আপনি বেট-এ লাগানো সকল টাকাই খোয়াবেন।
সিস্টেম
এক্ষেত্রেও আপনাকে বিভিন্ন ফলাফলের উপরেই বেট করতে হবে, কিন্তু এটি গুরুত্বপূর্ণ নয় যে, সব ফলাফল বা আউটকামই আপনার পক্ষে হতে হবে। টাকা উপার্জনের সুযোগ এক্ষেত্রে এক্সপ্রেস বেট-এর চেয়ে কম, কিন্তু ঝুঁকিও অনেকাংশে কম।
পারলেই+
এটি অতিরিক্ত অডস-সম্পন্ন এক ধরণের বেট। এ ধরণের বেট এর মাধ্যমে বেশি বেশি টাকা উপার্জনের সুযোগ আমরা আপনাদের মাঝে মাঝেই দিব, বিশেষ এবং নির্দিষ্ট কিছু খেলায় এবং প্রেডিকশনে।

আপনি অনভিজ্ঞ দড়ির যদি, একক দিয়ে শুরু, এবং তারপর সিস্টেম কয়টা বেট এগিয়ে যান.

এসকল প্রকারের বেটই আপনার হাতের নাগালে থাকবে, একবার যদি আপনাদের প্যারিম্যাচ অ্যাপটি ডাউনলোড করে ফেলেন। আমরা এসব বেট-এর জন্য কোন অতিরিক্ত খরচ দাবী করিনা।

অ্যাপের বৈশিষ্ট্যসমূহ

প্যারিম্যাচ অ্যাপটি মোবাইলে ডাউনলোড করার মাধ্যমে আপনি সুযোগ পাবেন একটি আস্থাবান এবং কার্যকর অ্যাপ্লিকেশন চালানোর। আমরা প্রত্যেক ব্যবহারকারীকে এইসব সুবিধা নিশ্চিত করে থাকিঃ

  • অ্যান্ড্রোয়েড এবং আইওএস প্ল্যাটফর্মে নির্বিঘ্নে চালানো।
  • চতুর, সূক্ষ্ম, এবং স্বজ্ঞাত ইন্টারফেইস।
  • এক হাতে চালাতে পারার অসাধারণ অভিজ্ঞতা।
  • অ্যাপ্লিকেশনটির মাধ্যমে যাচাইকরণ (ভেরিফিকেশন) করার সুবিধা।
  • সব ধরণের বোনাস এবং প্রমোশনাল ক্যাম্পেইনে অংশগহণ করার সুযোগ।
  • সর্বাত্মক সুবিধাসম্পন্ন ক্যাশিয়ার ব্যবস্থা, যার মাধ্যমে আপনি টাকা জমাদান বা উত্তোলন নিমিশেই করতে পারবেন।
  • কিওয়ার্ড ব্যবহার করে যেকোন ম্যাচ খুঁজে পেতে পারবেন।

স্বজ্ঞাত ইন্টারফেস, স্থিতিশীল কাজ, অ্যাপ্লিকেশন এবং আরো অনেক মাধ্যমে যাচাই করার সম্ভাবনা:

উপযুক্ত ব্যবহারকারীদের জন্য প্যারিম্যাচ বেটিং অ্যাপে একটি ক্যাসিনো বিভাগও রয়েছে। তাই, স্পোর্টস বেটিং-এ বিরক্ত বা বিষণ্ণ হয়ে পড়লে ক্যাসিনো বিভাগে গিয়ে হাজারো স্লট মেশিনেও নিজের ভাগ্য পরীক্ষা করতে পারেন।

বেটিং অপশনসমূহ

ব্যবহারকারীদের সুবিধার জন্য আমরা বেটিং এর জন্য বিভিন্ন অপশন সরবরাহ করে থাকি। তার সবগুলোই প্যারিম্যাচের অ্যাপটিতে পাওয়া যাবে।

ম্যাচের আগে

এটি একটি ক্লাসিক বেটিং অপ্সহন, যা অনেকদিন ধরেই চালু রয়েছে বেটিং দুনিয়ায়। এখানে আপনাকে কোন ম্যাচ বা ইভেন্ট শুরু হওয়ার আগেই সেটির প্রাথমিক ফলাফল অনুধাবন (প্রেডিক্ট) করতে হবে। ম্যাচের আগের প্রেডিকশনে আপনার হাতে সবচেয়ে বেশি প্রেডিকশন উপস্থিত থাকবে। এছাড়াও, আপনি যেকোন একটি ম্যাচেরই আলাদা আলাদা ফলাফলেও প্রেডিকশন করতে পারবেন এই অপশন এর মাধ্যমে।

এটা সবচেয়ে জনপ্রিয় এবং পণ সহজতম ধরনের.

সরাসরি

সরাসরি বা লাইভ বেটিং এর মাধ্যমে আপনি সুযোগ পাবেন একটি চলমান ম্যাচের বিভিন্ন ফলাফলে বেটিং করার। এক্ষেত্রে আপনাকে খুবই দ্রুত বেটিং করতে হবে ম্যাচটিতে চলমান বিভিন্ন ইভেন্টগুলির উপর। অর্থাৎ, আপনি যদি ম্যাচ শুরুর আগে কোন ফলাফলে প্রেডিকশন করতে সক্ষম নাও হোন, তবুও হতাশ হওয়ার কিছু নেই। ম্যাচ শুরুর পরেও আপনি উচ্চ অডসে বেটিং করতে পারবেন।

আপনি পরম আনন্দদান অ্যাপ্লিকেশন মাধ্যমে নৈপুণ্য মেলে দেখতে এবং অবিলম্বে আপনার কয়টা বেট সংশোধন করতে পারেন.

ভার্চ্যুয়াল স্পোর্টস

একটি অনন্য বেটিং মোড, যেখানে আপনি ফুটবল, বাস্কেটবল ও টেনিসের মত আরো কিছু নামীদামী খেলার ভার্চ্যুয়াল সিম্যুলেশনের উপর বেট করতে পারবেন। এসব ইভেন্টের আদ্যোপান্ত আপনি সরাসরিও উওভোগ করতে পারবেন।

আপনি সাইবার সোমবার উপর বাজি রাখতে পারেন.

একাধিক বেটিং

আপনি যদি একজন অভিজ্ঞ বেটিং খেলোয়াড় হয়ে থাকেন, তাহলে আপনি একাধিক প্রেডিকশন একটিমাত্র স্লিপের মধ্যে অন্তর্ভুক্ত করতে পারবেন। অডস-গুলোও সেক্ষেত্রে সমান তালে বাড়বে, সাথে সাথে উপার্জনের হার এবং সম্ভাবনা উভয়ই বৃদ্ধি করে দিবে। কিন্তু এক্ষেত্রেও, আপনার করা সকল প্রেডিকশনের ফলাফলই আপনার অনুকূলে থাকতে হবে।

এটা অনেক টাকা জয় করার জন্য একটি দুর্দান্ত সম্ভাবনা, কিন্তু আপনি অনেক হারাতে পারেন.

মোবাইল ওয়েবসাইট

আপনি যদি কোনকিছুই ডাউনলোড বা ইন্সটল করতে না চান, তাহলে আপনি মোবাইলে আমাদের ব্রাউজার ভার্সনটিও ব্যবহার করতে পারেন। এটি করবার জন্য আপনাকে শুধুমাত্র আমাদের ওয়েবসাইটটিতে লগ-ইন করতে হবে। ব্রাউজার ভার্সনটিতে এসকল সুবিধা পাবেনঃ

  • প্যারিম্যাচ অ্যাপটি ডাউনলোড করার পেছনে আপনার অযথা সময় অপচয় করতে হবেনা।
  • এটি আপনার ডিভাইসের কোন ধরণের স্পেস নষ্ট করেনা। 
  • আপনি একসাথে অনেকগুলো খেলায় অংশগ্রহণ করতে পারবেন।

এছাড়া, ব্রাউজার ভার্সনটির ইন্টারফেইস আপনার মোবাইল স্ক্রিনের সাথে আপনা-আপনিই সমন্বিত হয়ে যাবে, যাতে করে বেটিং করা আপনার মতই অ্যাপ্লিকেশনের মতই সুবিধাজনক ও সহজ হয়ে যাবে।

ওয়েব সংস্করণ প্রত্যেক মোবাইল ব্রাউজারে পাওয়া যায়.

প্যারিম্যাচ অ্যাপ ব্যবহার করে বেটিং করার সুবিধাসমূহ

যদিও আমাদের ওয়েব ভার্সন এবং অ্যান্ড্রোয়েড অ্যাপের মধ্যে তেমন কোনই বড়সড় পার্থক্য নেই, তবুও ক্লায়েন্টটি সেলফোনে ইন্সটল করার বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ সুবিধা রয়েছে। সেগুলো হলঃ

  • একটি শ্রেয় এবং আরো ব্যবহারকারী-সহায়ক ইন্টারফেইস। যেকোন ডিস্প্লেতেই অ্যাপ্লিকেশনটি খাপ খেয়ে যায়। এক্ষেত্রে ব্রাউজার ব্যবহার করে ওয়েবসাইটের মাধ্যমে বেটিং করতে গেলে অনেক সময় সমস্যার স্মমুখীন হতে পারেন, বিশেষ করে যদি আপনার স্মার্টফোনের ডিস্প্লেটি প্রমান বা স্ট্যান্ডার্ড সাইজের না হয়ে থাকে।
  • উচ্চ স্থিতিশীলতা। অ্যাপটিতে অতি উচ্চ ইন্টারনেট স্পীডের প্রয়োজনীয়তা নেই বললেই চলে। আপনার কানেকশনটি যদি কম-স্পীডসম্পন্নও হয়ে থাকে, আপনি নিশ্চিন্তে এবং নির্বিঘ্নে বেটিং চালিয়ে যেতে পারবেন।
  • ব্যাটারী ব্যবহার। একটি ওয়েবসাইট চালালে একটি অ্যাপ চালানোর চেয়ে অনেক বেশি ব্যাটারি-শক্তি খরচ হয়ে যায় আ[পনার স্মার্টফোনের।
  • সহজলভ্যতা। টেকনিক্যাল কাজের জন্য আমাদের ওয়েবসাইটটি অনেক সময় বন্ধ থাকলেও অ্যাপটিতে বেটিং কখনোই বন্ধ থাকেনা।

অ্যাপ্লিকেশন এছাড়াও ভাল সুরক্ষিত. ডাটা এনক্রিপশন ধন্যবাদ, ব্যক্তিগত তথ্য ফুটো ঝুঁকি সংক্ষিপ্ত.

ফিরতি পর্যন্ত উচ্চ মতভেদ, মত অনেক সুবিধা আছে 12000 আইএনআর স্বাগতম বোনাস, ক্রিকেট পণ অপশন বিস্তৃত.

মোবাইল অ্যাপ এবং মোবাইল ওয়য়েবসাইটের মধ্যে পার্থক্য

কার্যত, অ্যান্ড্রোয়েডের জন্য প্যারিম্যাচের মোবাইল অ্যাপটি বুকমেকারটির ব্রাউজার ভার্সনের সাথে সম্পূর্ণভাবেই সাদৃশ্যপূর্ণ। পার্থক্য যা আছে তা মূলত ইন্টারফেইসে এবং কিছু অতিরিক্ত ফিচারের ক্ষেত্রে। এছাড়া অন্যান্য পার্থক্যগুলো হলঃ

  • ১। অফিসিয়াল মোবাইল ওয়েবসাইটটিতে আমাদের আসল ডিজাইনের একটি পরিবর্তিত রূপ দেখা যায়। ওয়েবসাইটটি কোন মোবাইল ডিভাইস দিয়ে ওপেন করলে বেশির ভাগ বাটনই নিচে একটি ফিক্সড মেন্যুতে স্থানান্তরিত হয়। অ্যাপ ভার্সনে এসব বাটনের জন্য একটি আলাদা মেন্যুই রয়েছে।
  • ২। ওয়েবসাইট থেকে বুকমেকারটির সাপোর্ট টিমকে সরাসরি চ্যাটের মাধ্যমে যোগাযোগ করা যায়। এই অপশনটি আপনি অ্যাপে পাবেন না।
  • ৩। এক পেইজ বা বিভাগ থেকে অন্য পেইজ বা বিভাগে যাওয়ার সময় অ্যাপ ভার্সনে শুধুমাত্র একটি উইন্ডোই ব্যবহার করা যায়। ব্রাউজার ভার্সনটি ব্যবহার করলে আপনি একই সাথে কয়েকটি ট্যাব খুলতে পারবেন, যদিও তা করার প্রয়োজন খুব বেশি পরবে না।

ওয়েবসাইট ভার্সন ব্যবহার করার আরেকটি দিক হচ্ছে, এতে করে অনেক কুকিজ এবং ক্যাশ আপনার ডিভাইসে জমা হতে থাকে, এবং একটি নির্দিষ্ট সময়ের পর এগুলো আপনার ডিভাইসের অনেক জায়গা নষ্ট করতে শুরু করে। প্যারিম্যাচ বাংলাদেশ অ্যাপটি ব্যবহার করলে আপনাকে এই অসুবিধাটির সম্মুখীন হতে হবেনা।

অন্যথা, আর কোন পার্থক্য পাওয়া যায়নি। খেলোয়াড়রা সমান সংখ্যক খেলায় অংশ নেওয়ার সুযোগ পান। ওয়েবসাইট এবং অ্যাপে অডস এর পরিমাণও সমান।

There are not a big difference between Parimatch mobile app and website.

উপসংহার

বাংলাদেশ এবং গোটা বিশ্বে প্যারিম্যাচ অ্যাপটি হচ্ছে বেটিং এর জন্য সবচেয়ে সহজ ও সুবিধাজনক অ্যাপগুলোর একটি। এটি আপনাকে বুকমেকারটির অফিসের সকল ফাংশন এবং ফিচার কোনরকম বাঁধা ছাড়াই ব্যবহার করতে সমর্থ করে। এখানে খেলোয়াড়দের জন্য অপেক্ষা করছেঃ

  • পরিবর্তনশীল ডিজাইনের সাথে একটি সুবিধাজনক ইন্টারফেইস, যেটি কিনা যেকোন ডিভাইসের ডিস্প্লের ডায়াগোনালের সাথে খাপ খাইয়ে নিতে সক্ষম।
  • খুবই কম সিস্টেম রিকোয়্যারমেন্টস, যাতে করে আপনি কোন পুরনো বা আউটডেটেড অ্যান্ড্রোয়েড বা আইওএস স্মার্টফোনেও এটি চালাতে পারবেন।
  • স্বয়ংক্রীয় আপডেটস, যা আপনার বারবার অ্যাপটি আপডেট করার ঝামেলা দূর করে দেয়।
  • আপনার মাইন অ্যাকাউন্টে বাংলাদেশী টাকার সম্পূর্ণ সাপোর্ট। আপনি কোন প্রকার এক্সচেঞ্জ ফি ছাড়াই টাকা জমা ও উত্তোলন করতে পারবেন, এবং বেটও স্থাপন করতে পারবেন।
  • ২৪ ঘন্টা গ্রাহক সাপোর্ট, যার মাধ্যমে দিন বা রাতের যেকোন সময় আপনার যেকোন প্রশ্নের উত্তর পেয়ে যাবেন।
  • অ্যাপ্লিকেশনটির একটি পূর্ণাঙ্গ ক্যাশ ডেস্ক, যেখানে আপনি যেকোন কার্যক্রম সম্পন্ন করতে পারবেন।

আমরা আমাদের অ্যাপটি বাংলাদেশের খেলোয়াড়দের জন্য যতটা সম্ভব সুবিধাজনক ও আরামপ্রদ করার চেষ্টা করে যাচ্ছি। এখনি প্যারিম্যাচের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট থেকে আমাদের অ্যাপটি ডাউনলোড করে নিন, এবং খেলাধুলার প্রতি আপনার আবেগকে কাজে লাগিয়ে জিতে নিন অনেকগুলো টাকা।

ভারতে ফিরতি অ্যাপ্লিকেশন সম্পর্কে সিদ্ধান্তে অঙ্কন. অ্যাপ্লিকেশন সব আধুনিক প্রয়োজনীয়তা সঙ্গে সম্পূর্ণরূপে অনুবর্তী.

সাধারণ প্রশ্ন

এখনো কোন প্রশ্ন আছে মনে? তাহলে আমাদের সাপোর্ট ইউনিটকে support@parimatch.com এই ইমেইলে যোগাযোগ করুন অথবা নিচের অংশে নিজের উত্তরটি খুঁজে নিন। এখানে আমরা খেলোয়াড়দের করা বেশ কিছু সাধারণ প্রশ্নের উত্তর সংযুক্ত করেছি।

অ্যাপটি ইন্সটল না হলে আমার কি করা উচিৎ?

যদি আপনি অ্যা ন্ড্রোয়েড হ্যান্ডসেট ব্যবহারকারী হোন, তাহলে আপনার হ্যান্ডসেটের সিকিউরিটি সেটিংস এ যেয়ে “Allow the installation of applications from unknown devices” অপশনটি চালু করে নিন। এছাড়াও এটি নিশ্চিত করুন যে আপনার স্মার্টফোনটি আমাদের অ্যাপের সর্বনিম্ন সিস্টেম রিকোয়্যারমেন্টস পূরণ করে। এরপরেও যদি সমস্যাটির সমাধান না হয়, তবে আমাদের সাপোর্ট টিমের সাথে যোগাযোগ করুন।

আমার কি অ্যাপের জন্য আলাদাভাবে নিবন্ধন করতে হবে?

না, আপনি আমাদের ওয়েবসাইটে পূর্বে নিবন্ধন করে থাকলে সেই অ্যাকাউন্ট দিয়েই অ্যাপে লগ-ইন করে বেটিং করতে পারবেন। অ্যাপের জন্য আলাদা করে আবার নিবন্ধন করতে হবেনা।

মোবাইলের খেলোয়াড়রা কি বোনাস পান?

হ্যাঁ, ডেস্কটপ এবং মোবাইলের খেলোয়াড়দের জন্য বোনাস প্রোগ্রামে অংশগ্রহণ করার শর্তাবলি একদম একই।

আমি কি অ্যাপের মাধ্যমে টাকা জমা দিতে পারব?

হ্যাঁ পারবেন, কিন্তু আপনি যদি অ্যাপের মাধ্যমে ক্যাশিয়ার বিভাগে যান, তাহলে প্যারিম্যাচ অ্যাপ আপনাকে আপনার ব্রাউজারে একটি আলাদা পেইজে রিডাইরেক্ট করে দিবে।

অ্যাপটি কিভাবে আপডেট করা যায়?

যখন আপনি মোবাইল ক্লায়েন্টটি চালু করবেন, তখন অ্যাপটি স্বয়ংক্রিয়ভাবেই আপডেটের জন্য চেক করবে, এবং ডাউনলোডও করে ফেলবে।

আপডেট করা হয়েছে:

পোস্ট লেখক